fbpx
সংবাদ শিরোনাম
রাবিতে আন্তঃহল বিতর্ক প্রতিযোগিতার চ্যাম্পিয়ন সৈয়দ আমির আলী হল লাইলাতুল বারাআত তথা মুক্তি বা পরিত্রাণের রজনী। মুজিবনগরে বিদেশী পিস্তল সহ ৫ যুবক আটক। শারীরিক প্রতিবন্ধী শিশুকে হুইলচেয়ার উপহার কৃষকের মৃত্যুর ঘটনা নিয়ে ধ্রুমজাল তৈরি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে কেন্দ্রে ঢাবির ‘খ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় উপস্থিতির হার ৯১.৭৫ শতাংশ ২৯ ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু রাবির হোসন শহীদ সোহরাওয়ার্দী স্মারক আন্তঃক্লাব বিতর্ক উৎসব-২০২৪ ভাষা শহীদদের প্রতি রাবি রিপোর্টার্স ইউনিটির শ্রদ্ধাঞ্জলি। যশোরের অভয়নগর উপজেলা সমিতির দায়িত্বে গালিব ও পারভেজ সোনারগাঁও বিশ্ববিদ্যালয়ের সহযোগী অধ্যাপক ও বিভাগীয় প্রধান মাসুদ রানার পিএইচডি ডিগ্রি অর্জন
নোটিশ :

জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল ‘দৈনিক দেশান্তর’ এ সারাদেশে প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হচ্ছে। এজন্য দেশের বিভিন্ন জেলা, উপজেলা ও বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করতে আগ্রহীদের কাছ থেকে আবেদন আহবান করেছে প্রতিষ্ঠানটি। আগ্রহীদের ই-মেইলে সিভি পাঠানোর জন্য বলা হয়েছে। সিভি পাঠানোর ই-মেইল: dainikdeshantar@gmail.com  অথবা ০১৭৮৮-৪০৫০৯১ এ যোগাযোগ করুন।

শরণখোলায় খালে বাঁধ দিয়ে মাছের চাষ, দুই’শ বোরো চাষী বিপাকে

                                           
সোহেল রানা বাবু
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ১০ ফেব্রুয়ারি, ২০২২

বাগেরহাট জেলা প্রতিনিধিঃবাগেরহাটের শরণখোলায় একটি রেকর্ডীয় খালের একাংশ ব্যক্তি মালিকানা দাবী করে বাঁধ দিয়ে মাছের চাষ করেছেন স্থানীয় এক বিএনপি নেতার ছোট ভাই। ফলে সিডর ও আইলা বিধ্বস্ত এ জনপদের দুই শতাধিক চাষী এবার বোরো চাষ থেকে বঞ্চিত হবার পথে রয়েছেন । খাল থেকে নিয়মিত পানি ওঠা-নামা করতে না পারা এবং পানি সংরক্ষন করতে না পারায় তাদের বোরো চাষ অনিশ্চয়তার মুখে পড়েছে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর স্থানীয় পানি ব্যাবস্থাপনা কমিটির সভাপতি মনিরুজ্জামান খান সহ অর্ধশত চাষী স্বাক্ষরিত অভিযোগে জানা যায়, উপজেলার সাউথখালী ইউনিয়নের ৪নং রায়েন্দা ওয়ার্ডের মৃত আঃ মজিদ হাওলাদারের পুত্র ও ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি জাহাঙ্গীর হোসেনের ভাই মোঃ কামরুল ইসলাম শরণখোলা ৩৫/১ পোল্ডারের স্লুইসগেট (এফ এস-৭) সংলগ্ন এলাকায় সরকারী রেকর্ডীয় খালের একাংশ নিজের দাবী করে অনৈতিক ভাবে বাঁধ দিয়ে মাছের ঘের করেন । ফলে খাল দিয়ে ঠিকমত পানি ওঠানামা করতে না পারায় অসংখ্য চাষীদের বোরো চাষ অনিশ্চয়তার মধ্যে পড়েছে । ভুক্তভোগী চাষীরা অনতিবিলম্বে অনৈতিক ভাবে দেয়া বাঁধ কেটে দিয়ে খালটি পুনঃখননের দাবী জানিয়েছেন সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে ।

এ ব্যাপারে স্থানীয় ইউপি সদস্য মোঃ গিয়াস উদ্দিন জানান, মাঠের জলাবদ্ধতা নিরসনে এবং বোরো ও আমন চাষীদের জন্য এ খালটি অত্যন্ত গুরুত্বপুর্ন ভুমিকা রাখে । ব্যাক্তি স্বার্থে এটিতে বাঁধ দিয়ে মাছের ঘের করা হয়েছে যা সর্ম্পুন খামখেয়ালী মুলক । স্থাণীয় ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ মোজাম্মেল হোসেন জানান, খালে বাঁধ দিয়ে জনদূর্ভোগ সৃষ্টি করা হয়েছে । এটি একটি স্বেচ্ছাচারীতা। এ খাল চাষীদের সুবিধার্থে পরিষদের মাধ্যমে বহুবার কাটা হয়েছে ।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত মোঃ কামরুল ইসলাম জানান, অনৈতিক ভাবে কিছু করা হয়নি ।পৈত্রিক জমিতে তিনি মাছের চাষ করেছেন শুধু ।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মোঃ ওয়াসীম উদ্দিন জানান, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ আজগর আলী স্যারকে নিয়ে বিবাদমান খাল এলাকা পরিদর্শন করা হয়েছে । বিবাদীর মালিকানাধীন কিছু জমি খালের মধ্যে রয়েছে তাই তিনি বাঁধ দিয়ে মাছের চাষ করেছেন । তবে চাষীদের স্বার্থে তাঁর খাল কেটে দিয়ে পানি চলাচলের ব্যাবস্থা করা উচিৎ । আমরা জনস্বার্থে খাল কেটে দেয়ার জন্য মোঃ কামরুল ইসলামের সাথে যোগাযোগ অব্যাহত রেখেছি ।

সংবাদটি শেয়ার করুন

অনলাইন জরিপ

আপনি কি মনে করেন পাঠ্যবইইয়ের শরিফ থেকে শরিফা গল্পটি অপসারণ করা প্রয়োজন?
×

এই বিভাগ থেকে পড়ুন