fbpx
সংবাদ শিরোনাম
মেহেরপুরের সাহিত্যিক মোঃ নুর হোসেন শব্দ কথায় সৃষ্টি করে চলেছেন সাহিত্যের নানান আদিত্য তাকবিরে তাশরিক কখন কিভাবে? সূনয়না বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় প্রেস ক্লাবের সভাপতি জয়নাল,সাধারণ সম্পাদক শাহাদাত  Making The World A Better Place স্লোগানে তরুণ নেতৃত্ব তৈরি করছে  ইউপিজি ক্ষুদ্র উদ্যোক্তাদের উন্নয়নে নতুন করে পদক্ষেপ নেওয়ার সময় এসেছে- শিল্পমন্ত্রী বেনাপোলে দুই দেশের উচ্চ পর্যায়ের কর্মকর্তাদের কর্মশালা অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ-ভারত বন্ধুত্ব সকল স্বার্থের উর্ধ্বে – পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় প্রতিমন্ত্রী পাইকগাছায় উপজেলা নির্বাচনে বিজয়ী হলেন যারা উত্তরা আজমপুরে ডিএনসিসি’র উচ্ছেদ অভিযান; নেতৃত্বে মেয়র মোঃ আতিকুল ইসলাম

কুষ্টিয়াকে বাঁচাতে কঠোর লকডাউনের বিকল্প নেইঃ হানিফ

                                           
এস. এম সুমন
প্রকাশ : শুক্রবার, ১৮ জুন, ২০২১

কুষ্টিয়া জেলা প্রতিনিধি: কুষ্টিয়াকে বাঁচাতে, কুষ্টিয়ার মানুষকে বাঁচাতে কঠোর লকডাউনের কোন বিকল্প নেই। সংক্রমনের হার যেভাবে বাড়ছে তাতে আমরা সকলেই শংকিত। গতকাল বৃহস্পতিবার ১৭ জুন রাত ৮টা ৩০ মিনিটে জেলা প্রশাসক কুষ্টিয়া মোহাম্মদ সাইদুল ইসলামের সভাপতিত্বে জেলা করোনা (Covid-19) ভাইরাস প্রতিরোধ কমিটির জুম প্ল্যাটফর্ম এর মাধ্যমে বিশেষ সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক জননেতা মাহবুবউল আলম হানিফ এমপি একথা বলেন।

তিনি কুষ্টিয়াবাসীর উদ্দেশ্যে বলেন, শুধু প্রশাসন বললে আপনারা স্বাস্থ্যবিধি মানবেন আর না বললে মানবেন না এটা কেমন কথা? জীবন আপনার। এই জীবন রক্ষা করা, সুস্থ থাকা এই দায়িত্বটাও একান্তই আপনার নিজের। জীবনের ঝুঁকি নিযে, পরিবারকে ঝুঁকিতে ফেলে স্বাস্থ্য বিধি মানছেন না কেন? জননেতা মাহবুবউল আলম হানিফ এমপি আরো বলেন, আগামী ৭ দিন কুষ্টিয়ায় কঠোর লকডাউন দেখতে চাই। কোন ভেইকেল, রিক্সা, অটোরিক্সা রাস্তায় দেখতে চাইনা। রুগীবহন, কাঁচাবাজারের জন্য ২ ঘন্টা ব্যতিত কোন মানুকে ঘরের বাইরে দেখতে চাইনা। ম্যাজিষ্ট্রেট, পুলিশের পাশাপাশি RAB মাঠে থাকবে।

কুষ্টিয়ার মানুষকে এই ভয়াবহ করোনা ভাইরাস থেকে বাঁচাতে যা যা করনীয় সব করা হবে। একদিকে চিকিৎসা সেবা, কর্মহীনদের খাদ্য সরবরাহ অন্যদিকে চলবে কঠোর লকডাউন। কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালকে সাধারন মানুষ থেকে আইসোলেশন করতে হবে। প্রয়োজনে সাধারন রুগীদের ডায়াবেটিক হাসপাতালসহ অন্য হাসপাতালে স্থানান্তর করে পুরো হাসপাতালকে করোনা রুগীদের নিরাপদ সেবা কেন্দ্রে পরিণত করতে হবে। কোনভাবেই হাসপাতাল থেকে সাধারন মানুষের মাঝে করোনার সংক্রমন ছড়াতে দেওয়া যাবে না।

উক্ত সভায় কুষ্টিয়া জেলার করোনা নিয়ন্ত্রণে গুরুত্বপূর্ণ আলোচনা ও সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার খাইরুল আলম, জেলা পরিষদ কুষ্টিয়ার চেয়ারম্যান হাজী রবিউল ইসলাম , জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ্ব সদর উদ্দিন খান, সিভিল সার্জন ডাঃ আনোয়ারুল ইসলাম, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আতাউর রহমান আতা, জেনারেল হাসপাতালের আরএমও ডাঃ তাপস কুমার সরকার, মেডিসিন বিভাগের প্রধান ডাঃ সালেক মাসুদ, বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক ডাঃ সালেক মাসুদ, কুষ্টিয়া প্রেসক্লাব কেপিসি’র সভাপতি রাশেদুল ইসলাম বিপ্লব বক্তব্য রাখেন। এছাড়াও সভায় এনএসআই এর যুগ্ম পরিচালক ইদ্রিস আলী, RAB -১২ এর সিও, সকল উপজেলা চেয়ারম্যান, সকল উপজেলা নির্বাহী অফিসারসহ জেলা করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ কমিটির অন্যান্য সদস্যবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন


এই বিভাগ থেকে পড়ুন